প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

সম্পাদনা: আরাফাত হোসেন রবিন

ডেস্ক এডিটর

ফের শাহজালালে যাত্রীর অন্তর্বাসে ৪ কেজি স্বর্ণ

১৬ জানুয়ারি, ২০১৮ ১২:০৯:২৬

ছবি: সংগৃহীত

শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সিঙ্গাপুর ফেরত যাত্রীর অন্তর্বাসে পাওয়া গেল দুই কোটি ১৪ লাখ টাকার স্বর্ণ। সোমবার রাতে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে শাহজালালে নামেন ঐ যাত্রী। সোনার চালান আসার গোয়েন্দা তথ্য থাকায় শুরু থেকেই তার ওপর নজর রাখেন শুল্ক গোয়েন্দারা।

আটক যাত্রীর নাম মো. আনোয়ার হোসেন। তার বাড়ি রাজধানীর মোহাম্মদপুরে। পাসপোর্ট নং-বিএল-০১৭৬০৪৭। সোমবার দিবাগত রাতে সিঙ্গাপুর থেকে ঢাকায় আসা ওই যাত্রীর কাছ থেকে অনেক নাটকীয়তার পর স্বর্ণগুলো উদ্ধার হয়।

শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মইনুল খান জানান, আনোয়ার গ্রিন চ্যানেল দিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার সময় থামিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তিনি স্বর্ণ থাকার বিষয়টি অস্বীকার করেন। কিন্তু তার কথায় ‘অসঙ্গতি’ পাওয়ায় ব্যাগেজ কাউন্টারে এনে শুল্ক গোয়েন্দারা তার দেহ তল্লাশি করেন। তল্লাশিতে আনোয়ারের অন্তর্বাসের ভেতরে কালো কাপড়ে বিশেষভাবে মোড়ানো অবস্থায় ৪৩টি স্বর্ণের টুকরো পাওয়া যায় বলে মইনুল খান জানান।

তিনি বলেন, আনোয়ার এ বছর জানুয়ারিতেই দুইবার ঢাকা-সিঙ্গাপুর যাতায়াত করেছেন। গতবছর তিনি বিদেশে গেছেন পাঁচবার। জিজ্ঞাসাবাদে তিনি একজন ‘লাগেজ ব্যবসায়ী’ হিসেবে পরিচয় দিয়েছেন। তার কাছে পাওয়া ৪৩টি সোনার বিস্কুটের মোট ওজন চার কেজি ২৮৬ গ্রাম। আনুমানিক বাজারমূল্য দুই কোটি ১৪ লাখ ৩০ হাজার টাকা।

আনোয়ার দাবি করেছেন, ওই স্বর্ণ রেজাউল নামের এক ব্যক্তির। সিঙ্গাপুরে যাতায়াতের টিকেট ও ৫০ হাজার টাকার বিনিময়ে তিনি নাকি ওই স্বর্ণ বহন করছিলেন। শুল্ক আইনে আনোয়ারের বিরুদ্ধে মামলা করে তাকে বিমানবন্দর থানায় সোপর্দ করা হয়েছে বলে জানান শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগের মহাপরিচালক।

উল্লেখ্য, গত ৯ জানুয়ারি পৌনে তিন কেজি স্বর্ণসহ জান্নাতুল ফেরদৌস (২৩) নামে ঐ নারীকে আটক করে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে শুল্ক গোয়েন্দারা।

আটককৃত নারীর কাছ থেকে ২ দশমিক ৭৮৫ কেজি ওজনের ২৪ পিস স্বর্ণ উদ্ধার করা হয়েছে। এই সোনার আনুমানিক দাম এক কোটি ৩৯ লাখ টাকা। আটক নারীর বাড়ি নরসিংদী জেলায়।

বিডি২৪লাইভ/এএইচআর

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: